ঝগড়াটে মাছি

Stag Fly (Phytalmia cervicornis) mated female unsheathes her ovipositor to lay eggs while, the male guards and watches, Papua New Guineaআমাদের চারপাশে সাধারণত যেসব মাছি ওড়াউড়ি করে, সেগুলো খুব নিরীহ। নিজেদের মধ্যে খুব একটা ঝগড়া-বিবাদ করে না। কিন্তু পৃথিবীতে ফাইটালমিয়া সারভিকরনিস নামে এক ধরনের মাছি আছে, যেগুলো মারামারিতে দারুণ ওস্তাদ। দুটি মাছি সামনাসামনি হলেই হলো। শুরু হবে মারামারি। এসব মাছির স্ট্যাগ হরিণের মতো ডালপালাযুক্ত বলে গবেষকরা মাছিটির নাম দিয়েছেন ‘স্ট্যাগ ফ্লাই’। এ সদ্য কাটা গাছের গুঁড়িতে এরা ডিম পাড়ে। কিন্তু কেন? এর কারণ হলো, লার্ভার খাদ্য আসে কাটা গাছ থেকেই। হরিণের মতোই নানা আকারের হয়ে থাকে মাছিটি। তবে পুরুষ মাছির শিং ছোট বলে প্রাণীটি যুদ্ধে খুব একটা উৎসাহ দেখায় না। একেবারে ছোটগুলোর আবার শিং নেই। ‘স্ট্যাগ ফ্লাই’ সবচেয়ে বেশি মারামারি করে সেক্সায়ুল আধিপত্য বিস্তারের জন্য। শিংগুলো গজিয়ে ওঠে মূলত তখনই। অস্ট্রেলিয়ার কুইন্সল্যান্ডে আছে আরেক ধরনের ছোট শিংওয়ালা মাছি। এগুলোকে বলে ‘গোট ফ্লাই’ বা ছাগল মাছি। এগুলোর আছে লম্বা পা। ইচ্ছা হলেই পুরুষ মাছি নারীগুলোর সঙ্গ লাভ করতে পারে। বলা যায়, এ মাছি দায়িত্বশীলও। কারণ ডিম দেয়ার সময় স্ত্রীর পাশেই বসে থাকে পুরুষটি।

জুনায়েদ তানভীর ১৩/০৭/২০১৩

Check Also

এসেছে বাংলার ওয়াইল্ড মেন্টর

এই অ্যাপটির প্রধান উদ্দেশ্য, বিভিন্ন প্রাণির সামগ্রিক বিবৃতি উপস্থাপন। বৈজ্ঞানিক নাম থেকে শুরু করে, কোনো একটি নির্দিষ্ট প্রাণির বিভিন্ন বয়সের ছবি, স্বভাব, আচরণ, আকার-আকৃতি, রঙ, খাদ্য, ইত্যাদি সামগ্রিক ধারণা পাওয়া যাবে এখানে খুব সহজেই। এমনকি পৃথিবীর কোথায় কোথায় এর অস্তিত্ব আছে, সেটিও ম্যাপের মাধ্যমে তুলে ধরা হয়েছে এখানে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *