নীলদাড়ি সুইচোরা

নীলদাড়ি সুইচোরা বা বড় সুইচোরা বা পাহাড়ি সুইচোরা  (বৈজ্ঞানিক নাম:Nyctyornis athertoni ) (ইংরেজি: Blue-bearded Bee-eater) মেরোপিডি পরিবারে অন্তর্গত নিকটিওরনিস গনের এক প্রজাতির পতঙ্গভূক পাখি। এরা বাংলাদেশের স্থানীয় পাখি। এদের সচারচর দেখতে পাওয়া যায় না।আই. ইউ. সি. এন. এই প্রজাতিটিকে Least Concern বা আশংকাহীন বলে ঘোষণা করেছে। বাংলাদেশে এই প্রজাতির অবস্থা সম্পর্কে প্রয়োজনীয় তথ্য নেই।

mm005

এদের বড় কাস্তে আকৃতির ঠোঁট আছে। এদের লেজের নিচের দিক বর্গাকৃতির। এই পাখিরা দেখতে তৃণবৎ সবুজ। কপাল, মুখ এবং চিবুক দেখতে আসমানি রঙের। এদের গলার পালকগুলো বড় হয়ে দাড়ি আকৃতি প্রদান করে। এদের পেট হলুদাভ হতে জলপাই সবুজ। এর মাঝে মাঝে সবুজ বা নীল দাগ দেখা যায়। স্ত্রী এবং পুরুষ পাখি দেখতে একরকম।

এই প্রজাতির পাখিরা সাধারনত মাঝারি উচ্চতায় থাকে যা ২২০০ মি এর নিচে। কম ঘন জঙ্গলে এদের দেখা যায়। এরা সাধারনত একাকী বা ছোট দলের সঙ্গে থাকে। পাহাড়ি এলাকায় এদের দেখতে পাওয়ার কথা শুনতে পাওয়া যায়।

5573561245_de6040afac

এরা প্রধানত পতঙ্গ শিকারি পাখি। এরা বড় মৌমাছিদের বাসা আক্রমন করে। ফলে প্রহরী পতঙ্গরা বাসা থেকে বাইরে বের হয়। এই সুযোগে পাখিরা এদের শিকার করে। এদেরকে বিভিন্ন ফুলেও বসে থাকতে দেখা যায়। তবে এরা কি ফুলের মধু খায় না ফুলের পতঙ্গ শিকার করে তা জানা যায় নি।

এদের প্রজনন মৌসুম ফেব্রুয়ারি থেকে অগাস্ট পর্যন্ত। ডিম পাড়ার ১ মাস আগে এরা বাসা তৈরি করে। এরা কাদার গভীরে গর্ত করে বাসা তৈরি করে। এরা একসাথে ৪টি ডিম পাড়ে। ডিমগুলো দেখতে সাদা এবং গোলাকার।

Check Also

শ্যামগঞ্জে ২০৫ টি পাখি জব্দ

জব্দকৃত পাখিগুলোর মধ্যে রয়েছে , নিশি বক ৫, কানি বক ৬৫, গোবক ২৫, পানকৌড়ি ০৭, কালিম ০৪, কাদাখোঁচা ৪৫, পাতি সরালি ০৪, বালি হাস ০২, সোনাজিড়িয়া ২৮, পাতি বাটান ২০।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *