সুন্দরবন-একটি সংগ্রামের গল্প

মনিজা মনজুর

‘পাঁচ পীর গাজী বদর বদর

ক্ষেপেছে… দুরন্ত নদী পশর।

মাঝি… ধর আরে পারি জোরে, টান দেও দাড়ি

মাঝি ধর আরে পারি জোরে, টান দেও দাড়ি মাঝি।

কাল ম্যাঘে… আকাশ গিছে ছাইয়ে…..

হেইওরে… শাবাশ শাবাশ হেইওরে হেইওরে’

মনোরঞ্জন সরকারের লেখা এ গান প্রতিকূলতার সঙ্গী হয়ে টিকে থাকা মাঝিমল্লারের গান। সকল ঝড় ঝঞ্ঝাকে আগলে রেখে প্রতিদিনই সংগ্রামের এক অনন্য গাঁথা রচিত হয় বাংলাদেশের দক্ষিণাঞ্চলের অপার সৌন্দর্যের আধার সুন্দরবনে। সুন্দরবনকে নিয়ে নির্মিত হয়েছে অসংখ্য প্রামাণ্যচিত্র। আজ একটি উল্লেখযোগ্য প্রামাণ্যচিত্রের কথা বলব, যা নির্মাণ করেছেন শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল প্রকৃতিপ্রেমী তরুণ। তাদের একমাত্র  প্রকৃতি  বিষয়ক ছাত্র-সংগঠনের নাম “Green Explore Society”.

10606438_899240020105128_3837192413017314403_n

‘G-Studio’ এর ব্যানারে মাহাদী হাসান রুবেল এর পরিচালনায় সুন্দরবনের উদ্ভিদ, জীববৈচিত্র্য এবং জীবনধারা নিয়ে সম্প্রতি নির্মিত হয়েছে- “Sundarbans-Story of Survival”. প্রথমেই তুলে ধরা হয়েছে সুন্দরবনের ভৌগলিক অবস্থান এবং বন্যপ্রাণী অভয়ারন্য অঞ্চলগুলো। এরপর আসে উদ্ভিদরাজির শোভা। যেখানে দেখানো হয়েছে লম্বাকৃতির গোলপাতা,বাঘ মামার লুকানোর পর্দা হেতাল, হরিণের প্রিয় কেওড়া, গেওয়া,আগামরা রোগাক্রান্ত সুন্দরী, বাইন, পশুর,গরান গাছকে। আছে সুন্দরবনের সৃষ্টিলগ্নের সাক্ষী সানগ্রাস এর কথা। লবণাক্ত পরিবেশে গাছগুলোর বেঁচে থাকার ক্ষমতা এবং প্রক্রিয়ার ধারাবর্ণনা আছে এই প্রামাণ্যচিত্রে।শুধু তাই নয় ক্রমাগনন প্রক্রিয়া, কেওড়া, সুন্দরী, গরানের শ্বাসমূল, ঠেসমূল, পুরু ও রসালো পাতা, জরায়ুজ অঙ্কুরোদগম এমন সব অনন্য বৈশিষ্ট্যও উঠে এসেছে এখানে।

এরপর আসা যাক বিশাল জীববৈচিত্র্যের ভান্ডারে। দেখবেন পাখনার সাহায্যে কাদামাটি আঁকড়ে ধরে চলাচল করা ‘Mud screeper’, লাল কাঁকড়া,জেলী ফিশ,শামুক। পাখির তালিকায় আছে লাল টুকটুকে ঠোঁট রাঙ্গানো টিয়া, প্রকৃতির কাঠুরে কাঠঠোকরা,ধুরন্ধর শিকারী মাছরাঙ্গা, বাতাসের সাথে খেলায় মেতে ওঠা শঙ্খচিল, আছে বাজপাখি আর কাদাখোচা,ঘুঘু, শালিক ও ময়না। সুদীপ্তা সিনহার ধারাবর্ণনায় প্রামাণ্যচিত্রটির আকর্ষণীয় দিক হলো এর শব্দ প্রকৌশল ও চিত্রগ্রহন।

Sundarban-Tree-and-River

১০ সেপ্টেম্বর ইউটিউবে মুক্তি পাওয়া প্রামাণ্যচিত্রটিতে সুন্দরবনের উপর নির্ভরশীল মানুষের জীবনযাত্রার কথাও উঠে এসেছে। আছে জেলেদের মাছ শিকারের কৌশল থেকে শুরু করে মধু সংগ্রহ করা মাওয়ালিদের জীবনযুদ্ধের গল্পের চিত্রায়ন। এ প্রামাণ্যচিত্র সুন্দরবনের, আর বাঘের দেখা পাবেন না তা কি করে হয়? একদিকে যেমন আছে কুমির আর বন্য শূকরের হিংস্রতা, অন্যদিকে বানর আর হরিণের বন্ধুত্বের গল্প। অর্চিশমান দত্তের কন্ঠে ঢোল, মন্দিরা, একতারা আর খোলের সংমিশ্রনের আবহসঙ্গীত আপনাকে মনে করিয়ে দিবে দেশীয় ঐতিহ্যের গন্ধ। বাদুড় আর সাপের আনাগোনায় রাতের সুন্দরবনের গা ছমছমে রূপ আর অপরদিকে জেলেপাড়ার জোনাকজ্বলা  কুপিবাতি যেন ভিন্নরূপে সাজায় সুন্দরবনকে।

সুন্দরবনের সংগ্রামের গল্পটা  তাহলে এখানেই দেখে নিন-

 

Check Also

এসেছে বাংলার ওয়াইল্ড মেন্টর

এই অ্যাপটির প্রধান উদ্দেশ্য, বিভিন্ন প্রাণির সামগ্রিক বিবৃতি উপস্থাপন। বৈজ্ঞানিক নাম থেকে শুরু করে, কোনো একটি নির্দিষ্ট প্রাণির বিভিন্ন বয়সের ছবি, স্বভাব, আচরণ, আকার-আকৃতি, রঙ, খাদ্য, ইত্যাদি সামগ্রিক ধারণা পাওয়া যাবে এখানে খুব সহজেই। এমনকি পৃথিবীর কোথায় কোথায় এর অস্তিত্ব আছে, সেটিও ম্যাপের মাধ্যমে তুলে ধরা হয়েছে এখানে।

One comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *