ডানা মেললো লক্ষী প্যাঁচা ও ভুবন চিলটি

ভুল করে বাসা থেকে নিচে পড়ে গিয়েছিল লক্ষী প্যাঁচাটি। সেখানে পেয়ে ছোট্ট ছেলেরা তাদের খেলার বিষয় বানিয়ে ফেলেছিল । পায়ে সুতা দিয়ে বেঁধে টানা হেঁচড়া করে খেলা করছিলো। বিষয়টি দেখে তাদের থামিয়ে প্যাঁচাটি উদ্ধার করেন দোকানদার কায়েস। পরে সিলেটের লিডিং ইউনিভার্সিটির ছাত্র প্রাধিকারের একনিষ্ঠ সমর্থক কামরুল ইসলাম বিষয়টি জানান প্রাধিকারের গণযোগাযোগ বিষয়ক সম্পাদক মনজুর কাদের চৌধুরীকে। মনজুর ও প্রাধিকারকর্মী বিশ্বজিৎ দেব ছুটে যান প্যাঁচাটি উদ্ধার করতে। বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা) সিলেট জেলার সেক্রেটারি আব্দুল করিম কিম ও ভূমিসন্তান বাংলাদেশের সমন্বয়কারী আশরাফুল কবিরদের সহযোগিতায় তা উদ্ধার করেন প্রাধিকার কর্মী মনজুর ও বিশ্বজিৎ। 1

টানা তিনদিন তাকে সেবা করে সুস্থ্য করেন সিলেটের গৌরব নায়ক সালমান শাহের মামা আলমগীর কুমকুম।

এর এক সপ্তাহ আগে গ্রিন এক্সপ্লোর সোসাইটি ও ভূমিসন্তান বাংলাদেশের উদ্ধার করা ভুবন চিলটি সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রফেসর মুসলেহ উদ্দিন আহমেদ চৌধুরী ভেটেরিনারি টিচিং হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়ে আলমগীর কুমকুম সাহেবের সেবায় রাখা হয়। উল্লেখ্য যে চিলটির ডানায় গুলির ক্ষত ছিল।

২৯ জানুয়ারি লক্ষী প্যাঁচা ও ভূবন চিলটি অবমুক্ত করে দেয়া হয় । তারা মুক্ত আকাশে ফিরে যায়।

উপস্থিত ছিলেন প্রাধিকার কর্মী মনজুর কাদের চৌধুরী , বিশ্বজিৎ দেব , বিনায়েক শর্মা , সাহরুল আলম। উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা) সিলেট জেলা সেক্রেটারি আব্দুল করিম কিম , গ্রিন এক্সপ্লোর সোসাইটির সুমিত চৌধুরী এবং আলমগীর কুমকুম।

সিলেটের যেকোনো জায়গায় প্রাণী অধিকার হরণ হচ্ছে বা কোন প্রাণী বিপদে পড়েছে এমন খবর থাকলে উদ্ধার করার জন্য যে কেও যোগাযোগ করতে পারেন; মনজুর কাদের চোধুরী, পাবলিক রিলেশন সেক্রেটারি প্রাধিকার, মোবাইলঃ ০১৯২৫৬৯৮৫৬৯।

Check Also

এসেছে বাংলার ওয়াইল্ড মেন্টর

এই অ্যাপটির প্রধান উদ্দেশ্য, বিভিন্ন প্রাণির সামগ্রিক বিবৃতি উপস্থাপন। বৈজ্ঞানিক নাম থেকে শুরু করে, কোনো একটি নির্দিষ্ট প্রাণির বিভিন্ন বয়সের ছবি, স্বভাব, আচরণ, আকার-আকৃতি, রঙ, খাদ্য, ইত্যাদি সামগ্রিক ধারণা পাওয়া যাবে এখানে খুব সহজেই। এমনকি পৃথিবীর কোথায় কোথায় এর অস্তিত্ব আছে, সেটিও ম্যাপের মাধ্যমে তুলে ধরা হয়েছে এখানে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *